আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ইসরায়েলি বাহিনীর গত পাঁচ মাসের অভিযানে গাজা উপত্যকায় মোট নিহত ফিলিস্তিনিদের সংখ্যা পৌঁছেছে ৩০ হাজার ৫৩৪ জন। সে সঙ্গে আহত হয়েছেন মোট ৭১ হাজার ৯৮০ জন। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় ইসরায়েলি বাহিনীর বোমাবর্ষণে উপত্যকায় ১২৪ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। সোমবার এক বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানিয়েছে গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের ব্যাপক প্রচেষ্টায় গত ২৫ নভেম্বর থেকে ১ ডিসেম্বর পর্যন্ত মানবিক বিরতি ঘোষিত হয়েছিল গাজায়। সে সময় ১০৮ জন জিম্মিকে মুক্তি দিয়েছে হামাস। তার পরিবর্তে বিভিন্ন কারাগারে বন্দি ১৫০ জন ফিলিস্তিনিকে ছেড়ে দিয়েছে ইসরায়েল। হিসেব অনুযায়ী, এখন ১৩২ জন জিম্মি রয়েছেন হামাসের কব্জায়। তাদের ছাড়িয়ে আনতে গাজায় রমজান মাস শুরু হওয়ার আগে দ্বিতীয় দফায় ৪০ দিনের যুদ্ধ বিরতি হওয়ার কথা রয়েছে। তবে হামাস গাজায় স্থায়ী যুদ্ধবিরতি চাইছে।

            গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েলের ইরেজ সীমান্তে অতর্কিত হামলা চালিয়ে সামরিক-বেসামরিক ইসরায়েলি ও বিদেশি নাগরিকসহ ১ হাজার ২০০ জনেরও বেশি মানুষকে হত্যা করে গাজা উপত্যকার নিয়ন্ত্রণকারী গোষ্ঠী হামাসের যোদ্ধারা। সেই সঙ্গে জিম্মি হিসেবে ধরে নিয়ে যায় আরও ২৪০ জন ইসরায়েলি এবং অন্যান্য দেশের নাগরিককে। ১৯৪৮ সালে প্রতিষ্ঠার পর গত ৭৫ বছরের ইতিহাসে সে দিন প্রথম একদিনে এতজন মানুষের হত্যা দেখেছে ইসরায়েল। অভূতপূর্ব সে হামলার জবাবে সে দিন থেকে গাজায় অভিযান শুরু করে ইসরায়েলি বিমান বাহিনী এবং তার এক সপ্তাহ পর বিমান বাহিনীর সঙ্গে যোগ দেয় স্থল বাহিনী। সে অভিযানে নিহত হয়েছেন এ ৩০ হাজার ৫৩৪ জন। নিহতদের একটি বড় অংশ নারী, শিশু, কিশোর-কিশোরী এবং বেসামরিক লোকজন।

সূত্র: এএফপি, আল আরাবিয়া

খবরটি 351 বার পঠিত হয়েছে


আপনার মন্তব্য প্রদান করুন

Follow us on Facebookschliessen
oeffnen