জাতীয় ডেস্ক: দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সারা দেশে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত ২৯৮ জন সংসদ সদস্যের মধ্যে বয়সে সবার ছোট আজিজুল ইসলাম। মাত্র ২৮ বছর বয়সে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন আজিজুল। যশোর-৬ (কেশবপুর) সংসদীয় আসন থেকে তিনি বেসরকারিভাবে বিজয়ী হয়েছেন। আজিজুল ইসলাম খন্দকার আজিজের প্রতিপক্ষ ছিলেন দুই হেভিওয়েট প্রার্থী। একজন নৌকা প্রতীকের আলোচিত সমালোচিত যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সদ্য সাবেক সংসদ সদস্য শাহীন চাকলাদার। অন্যজন স্বতন্ত্র প্রার্থী ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ও দু’বারের উপজেলা চেয়ারম্যান এইচ এম আমির হোসেন।এ আসনটিতে দুই হেভিওয়েট প্রার্থীকে পিছনে স্বতন্ত্র প্রার্থী ঈগল প্রতীকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে জয়ী হয়েছেন ছাত্রলীগ নেতা আজিজুল ইসলাম।

            আজিজুল ইসলাম কেশবপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহসভাপতি। তিনি জেলা পরিষদ সদস্য পদ থেকে পদত্যাগ করে দ্বাদশ জাতীয় নির্বাচনে সংসদ সদস্য প্রার্থী হয়েছেন। যশোর-৬ আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন চারজন প্রার্থী। এ আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করেছেন আজিজুল ইসলাম। ঈগল প্রতীকে ৪৮ হাজার ৯৪৭ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন তিনি। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও বর্তমান সংসদ সদস্য শাহীন চাকলাদার। তিনি পেয়েছেন ৩৯ হাজার ২৬৭ ভোট। এ ছাড়া জাতীয় পার্টি মনোনীত প্রার্থী জিএম হাসান পেয়েছেন ৪১৮ ভোট। স্বতন্ত্র প্রার্থী আমির হোসেন কেচি প্রতীকে ১৭ হাজার ২৫৫ ভোট পেয়েছেন।
বিগত জাতীয় সংসদ নির্বাচনগুলোতে তুলনামূলক কম বয়সে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়ে অনেকে আলোচনায় এসেছেন। বর্তমান তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহম্মেদ পলক ২৯ বছর বয়সে নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নাটোর-৩ আসন থেকে আওয়ামী লীগের মনোনয়নে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়ে সারা দেশে আলোচনায় এসেছিলেন। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রয়াত আওয়ামী লীগ নেতা আব্দুল জলিলের ছেলে নিজাম উদ্দিন জলিল জন ছিলেন সর্বকনিষ্ঠ সংসদ সদস্য। এ সময় তার বয়স ছিল ২৭ বছর। আর সদ্য অনুষ্ঠিত দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সারা দেশে বেসরকারিভাবে বিজয়ী সংসদ সদস্যদের মধ্যে আজিজুল হক সর্বকনিষ্ঠ।

খবরটি 335 বার পঠিত হয়েছে


আপনার মন্তব্য প্রদান করুন

Follow us on Facebookschliessen
oeffnen